মঙ্গলবার ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০

১৪ আশ্বিন ১৪২৭

ই-পেপার

কেরানীগঞ্জ প্রতিনিধি

আগস্ট ১১,২০২০, ০২:৩৭

আগস্ট ১১,২০২০, ০৬:০১

অন্যের স্ত্রী নিয়ে উধাও আ.লীগ নেতা কাজী সুলতান মাহমুদ

অন্যের স্ত্রী ও তিন সন্তানের জননী কে নিয়ে উধাও কেরানীগঞ্জ উপজেলার প্রভাবশালী আ.লীগ নেতা ও বাংলাদেশ আ.লীগের ধর্ম বিষয়ক উপকমিটির সদস্য কাজী সুলতান মাহমুদ।

গত ৯ আগস্ট রাত সাড়ে ১০ টায় জুরাইন কালামিয়ার বাজার এলাকার আনিসুর রহমানের স্ত্রী ও ৩ সন্তানের জননী সায়মা চৌধুরী বিথীকে নিয়ে পালিয়ে যান কাজী সুলতান মাহমুদ। এসময় বিথীর সাথে ছিলো আনিসুর রহমানের ২ বছরের ছেলে সাইফান এবং বিশ হাজার টাকা।

তিন বাচ্চার মাঝে বড় মেয়ে ফিওণার বয়স ১৪ এবং মেঝু ছেলে আলাফ এর বয়স ১১ বছর। পরিবার সূত্রে জানা গেছে আজ থেকে প্রায় ১৭ বছর আগে ২০০৪ সালে পারিবারিক ভাবে বিথীও আনিসুর রহমানের বিয়ে হয়। বিয়ের পর ভালোই চলছিলো তাদের দাম্পত্য জীবন।

কিন্তু হঠাৎ সব এলোমেলো হয়ে গেলো। তিন বাচ্চার ভবিষ্যতের কথা চিন্তা করে পাগল প্রায় আনিসুর রহমান। নিয়ে যাওয়া ছেলেকে ফেরৎ চান তিনি। মায়ের এই কান্ড কোনভাবেই মেনে নিতে পারছেনা ফিওনা ও আলাফ। বিথীর মা-বাবাও তাকে বঞ্চিত ঘোষণা করেছে ইতোমধ্যে।

এদিকে তিন সন্তানের জনক (১ ছেলে,২ মেয়ে) সুলতান মাহমুদকে একাধিকবার ফোন করা হলেও তাকে পাওয়া যায়নি। স্বামী-স্ত্রী করোনা আক্রান্ত হয়ে এমনিতেই আলোচনা ছিলেন আ.লীগ নেতা ও দোলেশ্বর আহলে হাদিস মসজিদ কমিটির সহসভাপতি কাজী সুলতান মাহমুদ।

তিনি করোনাকে জয় করতে পারলেও স্ত্রী মারা যান করোনা আক্রান্ত হয়ে। এব্যাপারে কদতলী থানায় একটি সাধারণ ডাইরি করা হয়েছে। উভয়েই এলাকার প্রভাবশালী পরিবারের সদস্যা হওয়ায় এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।

আমারসংবাদ/এমআর